চালু হচ্ছে ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন » NewsBijoy24 । Online Newspaper of Bangladesh.
ঢাকা ০৯:৪১ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

চালু হচ্ছে ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন

  • নিউজ বিজয় ডেস্ক :-
  • প্রকাশিত সময় :- ১১:৩৪:৩৮ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২
  • ২৮৩ পড়া হয়েছে। নিউজবিজয় ২৪.কম-১৫ ডিসেম্বরে ৯ বছরে পর্দাপন

আম পরিবহনে চাঁপাইনবাবগঞ্জ থেকে চালু হচ্ছে ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন। রহনপুর-চাঁপাইনবাবগঞ্জ-রাজশাহী হয়ে ঢাকা পর্যন্ত আবার ঢাকা থেকে রাজশাহী হয়ে রহনপুর পর্যন্ত দুই ট্রিপে ট্রেনটি চলাচল করবে।

এই স্পেশাল ট্রেনটি চালু হবে আগামী ২২ থেকে ২৫ মে তারিখের মধ্যে।

বাংলাদেশ রেলওয়ে পশ্চিমাঞ্চলের মহাব্যবস্থাপক (পশ্চিম) অসীম কুমার তালুকদার এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, প্রতিবছরের মতো এবারও কম খরচে আম পরিবহনের জন্য ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন চালু করা হবে। গত বছর ২৫ মে ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন চালু হয়েছিল। এবারও প্রায় একই তারিখের দিকে চিন্তা করা হয়েছে। আমরা একটা সভা করে চাষিদের চাহিদা অনুযায়ী সময় নির্ধারণ করবো। গুটি জাতের আম যেহেতু ঢাকায় তেমন চাহিদা নেই, তাই ২০ তারিখের পর গোপালভোগসহ মিষ্টি জাতের আম পাড়া শুরু হলে তখন ট্রেন চালু হবে। আনুমানিক ২২ থেকে ২৫ তারিখের মধ্যে সময়টা হবে।

প্রতিকেজি আমে ভাড়া কত পরিমাণ হবে তা জানতে চাইলে তিনি বলেন, সাধারণত ভাড়া এবং ট্রেনের সময় পরিবর্তন হবে না। গতবারের যা ছিল তাই হবে। তবে সভা করে সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী যদি পরিবর্তন হয় তাহলে জানিয়ে দেওয়া হবে।

ট্রেনের সুবিধা জানতে চাইলে তিনি বলেন, কাঁচা বা আধাপাকা আম যেন গরম ও অতিরিক্ত চাপে নষ্ট না হয়ে যায় সে কারণে ধারণক্ষমতার কিছু কম পণ্য বহন করা হবে এবার। ট্রেনটি চাঁপাইনবাবগঞ্জ থেকে বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে ছেড়ে যাবে এবং ঢাকায় রাতে একটার দিকে পৌঁছাবে। এক্ষেত্রে খুব অল্প সময়ের মধ্যে ঢাকার বাজারগুলোতে তরজাতা সতেজ আম পৌঁছানো সম্ভব হবে। সড়কপথের মত যানজট না থাকায় আমেরও কোনো প্রকার ক্ষতির সম্ভাবনা নেই।

গতবারের মন্ত্রণালয়ের প্রস্তাব অনুযায়ী, প্রতিদিন দুপুর ২টায় রহনপুর থেকে ছেড়ে রাত ১টায় আমবাহী ট্রেনটি ঢাকা পৌঁছবে। আবার রাত ২টা ১৫ মিনিটে ঢাকা থেকে ছেড়ে রহনপুরে যাবে সকাল ১১টায়।

প্রসঙ্গত, গত বছর ২৫ মে আমসহ সবজি জাতীয় পণ্য কম খরচে ঢাকায় পরিবহনের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ‘ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন’ চালু করেন। পাঁচটি ওয়াগনে ঢাকায় যায় রাজশাহী অঞ্চলের আম। প্রতি বগির ক্যারিং ক্যাপাসিটি ৪৩ মেট্রিক টন হলেও আম বহন করা হয় ৩০ মেট্রিক টন। শুধু আম নয়, আমের সঙ্গে শাকসবজিসহ অন্যান্য ফলমূলও ট্রেনে পরিবহন হয় সেবার।

নিউজবিজয় ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন।

NewsBijoy24.Com

নিউজবিজয়২৪.কম একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল। বস্তুনিষ্ঠ ও তথ্যভিত্তিক সংবাদ প্রকাশের প্রতিশ্রুতি নিয়ে ২০১৫ সালের ডিসেম্বর মাসে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। উৎসর্গ করলাম আমার বাবার নামে, যাঁর স্নেহ-সান্নিধ্যের পরশ পরিবারের সুখ-দু:খ,হাসি-কান্না,ব্যথা-বেদনার মাঝেও আপার শান্তিতে পরিবার তথা সমাজে মাথা উচুঁ করে নিজের অস্তিত্বকে মেলে ধরতে পেরেছি।
জনপ্রিয় সংবাদ

সংরক্ষিত আসনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় এমপি হলেন ৫০ নারী

Advertisement

চালু হচ্ছে ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন

প্রকাশিত সময় :- ১১:৩৪:৩৮ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২

আম পরিবহনে চাঁপাইনবাবগঞ্জ থেকে চালু হচ্ছে ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন। রহনপুর-চাঁপাইনবাবগঞ্জ-রাজশাহী হয়ে ঢাকা পর্যন্ত আবার ঢাকা থেকে রাজশাহী হয়ে রহনপুর পর্যন্ত দুই ট্রিপে ট্রেনটি চলাচল করবে।

এই স্পেশাল ট্রেনটি চালু হবে আগামী ২২ থেকে ২৫ মে তারিখের মধ্যে।

বাংলাদেশ রেলওয়ে পশ্চিমাঞ্চলের মহাব্যবস্থাপক (পশ্চিম) অসীম কুমার তালুকদার এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, প্রতিবছরের মতো এবারও কম খরচে আম পরিবহনের জন্য ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন চালু করা হবে। গত বছর ২৫ মে ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন চালু হয়েছিল। এবারও প্রায় একই তারিখের দিকে চিন্তা করা হয়েছে। আমরা একটা সভা করে চাষিদের চাহিদা অনুযায়ী সময় নির্ধারণ করবো। গুটি জাতের আম যেহেতু ঢাকায় তেমন চাহিদা নেই, তাই ২০ তারিখের পর গোপালভোগসহ মিষ্টি জাতের আম পাড়া শুরু হলে তখন ট্রেন চালু হবে। আনুমানিক ২২ থেকে ২৫ তারিখের মধ্যে সময়টা হবে।

প্রতিকেজি আমে ভাড়া কত পরিমাণ হবে তা জানতে চাইলে তিনি বলেন, সাধারণত ভাড়া এবং ট্রেনের সময় পরিবর্তন হবে না। গতবারের যা ছিল তাই হবে। তবে সভা করে সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী যদি পরিবর্তন হয় তাহলে জানিয়ে দেওয়া হবে।

ট্রেনের সুবিধা জানতে চাইলে তিনি বলেন, কাঁচা বা আধাপাকা আম যেন গরম ও অতিরিক্ত চাপে নষ্ট না হয়ে যায় সে কারণে ধারণক্ষমতার কিছু কম পণ্য বহন করা হবে এবার। ট্রেনটি চাঁপাইনবাবগঞ্জ থেকে বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে ছেড়ে যাবে এবং ঢাকায় রাতে একটার দিকে পৌঁছাবে। এক্ষেত্রে খুব অল্প সময়ের মধ্যে ঢাকার বাজারগুলোতে তরজাতা সতেজ আম পৌঁছানো সম্ভব হবে। সড়কপথের মত যানজট না থাকায় আমেরও কোনো প্রকার ক্ষতির সম্ভাবনা নেই।

গতবারের মন্ত্রণালয়ের প্রস্তাব অনুযায়ী, প্রতিদিন দুপুর ২টায় রহনপুর থেকে ছেড়ে রাত ১টায় আমবাহী ট্রেনটি ঢাকা পৌঁছবে। আবার রাত ২টা ১৫ মিনিটে ঢাকা থেকে ছেড়ে রহনপুরে যাবে সকাল ১১টায়।

প্রসঙ্গত, গত বছর ২৫ মে আমসহ সবজি জাতীয় পণ্য কম খরচে ঢাকায় পরিবহনের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ‘ম্যাংগো স্পেশাল ট্রেন’ চালু করেন। পাঁচটি ওয়াগনে ঢাকায় যায় রাজশাহী অঞ্চলের আম। প্রতি বগির ক্যারিং ক্যাপাসিটি ৪৩ মেট্রিক টন হলেও আম বহন করা হয় ৩০ মেট্রিক টন। শুধু আম নয়, আমের সঙ্গে শাকসবজিসহ অন্যান্য ফলমূলও ট্রেনে পরিবহন হয় সেবার।