ঢাকা ০২:৫৫ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ২৯ চৈত্র ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ঈদ মোবারক

ভারতের কাশ্মীরে জি-২০ সম্মেলনে যোগ দিচ্ছে না চীন

  • আন্তর্জাতিক ডেস্ক :-
  • প্রকাশিত সময় :- ০১:১০:৩২ অপরাহ্ন, শনিবার, ২০ মে ২০২৩
  • ৪৯০ পড়া হয়েছে। নিউজবিজয় ২৪.কম-১৫ ডিসেম্বরে ৯ বছরে পর্দাপন

ভারতের কাশ্মীরে জি-২০ সম্মেলন আয়োজনের তীব্র বিরোধিতা করেছে চীন। সংগঠনটির আসন্ন সম্মেলনে চীন যোগ দেবে না বলেও জানিয়েছে। এ ছাড়া তুরস্ক ও সৌদি আরবও এ সম্মেলনে যোগ দিতে এখনো নিবন্ধন সম্পন্ন করেনি। ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

গতকাল শুক্রবার চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ওয়াং ওয়েনবিন এনডিটিভিকে বলেছেন, ‘কোনো বিতর্কিত এলাকায় সম্মেলন আয়োজনের বিরোধিতা করে চীন। এ কারণে কাশ্মীরের শ্রীনগরে অনুষ্ঠিতব্য জি-২০ সম্মেলনে চীন যোগ দেবে না।’

উল্লেখ্য, আগামী ২২ থেকে ২৪ মে শ্রীনগরে জি-২০ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

ভারতের কাশ্মীর একটি বিতর্কিত অঞ্চল। ২০১৯ সালে কাশ্মীরের ‘রাজ্য’ মর্যাদা বাতিল করেছে ভারত সরকার। এমন একটি অঞ্চলে জি-২০ সম্মেলন আয়োজন করার সমালোচনা করেছে চীন এবং সম্মেলনে অংশ না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

তবে এবারের জি-২০ সম্মেলনে বিভিন্ন দেশের অন্তত ৬০ জন প্রতিনিধি অংশ নেবেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। এর আগে অন্তত ১০০ জন অংশ নেবেন বলে আশা করা হয়েছিল।

এদিকে একটি নির্ভরযোগ্য সূত্রের বরাত দিয়ে এনডিটিভি জানিয়েছে, তুরস্ক ও সৌদি আরবও এ সম্মেলনে অংশ না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

দুদিন পর অনুষ্ঠিতব্য জি-২০ সম্মেলন উপলক্ষে শ্রীনগরে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। ভারত সরকার এ অঞ্চলে মেরিন কমান্ডো ও ন্যাশনাল সিকিউরিটি গার্ড (এনএসজি) মোতায়েন করেছে।

এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শ্রীনগরের শের-ই-কাশ্মীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সেন্টারে জি-২০ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। এ উপলক্ষে কনভেনশন সেন্টারটির আশপাশে এনএসজি কমান্ডোরা, পুলিশ ও আধাসামরিক বাহিনীর সদস্যরা গত বৃহস্পতিবার তল্লাশি চালিয়েছে।

ভারতীয় কর্মকর্তারা বলেছেন, কাশ্মীরের পর্যটন সম্ভাবনা বিশ্ববাসীর সামনে তুলে ধরতে এ অঞ্চলে জি-২০ সম্মেলন আয়োজন করা হয়েছে। আমরা বিশ্বের কাছে এই বার্তা দিতে চাই যে, কাশ্মীর ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ।

বিশ্বের বৃহৎ অর্থনীতির দেশগুলোর জোট জি-২০। এর সভাপতি দেশ ভারত। সভাপতির পদ গ্রহণ করার পর ভারত জানিয়েছিল, দেশের সব রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলেই জি-২০-এর কোনো না কোনো বিষয়ে সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। গত মার্চে ভারতের অরুণাচল প্রদেশের রাজধানী ইটানগরে দুই দিনের জি-২০ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছিল। সেই সম্মেলনেও অংশ নেয়নি চীন। আগামী সেপ্টেম্বরে দিল্লিতে জি-২০ এর শীর্ষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

নিউজবিজয়২৪/এফএইচএন

👉 নিউজবিজয় ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন ✅

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন।

NewsBijoy24.Com

নিউজবিজয়২৪.কম একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল। বস্তুনিষ্ঠ ও তথ্যভিত্তিক সংবাদ প্রকাশের প্রতিশ্রুতি নিয়ে ২০১৫ সালের ডিসেম্বর মাসে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। উৎসর্গ করলাম আমার বাবার নামে, যাঁর স্নেহ-সান্নিধ্যের পরশ পরিবারের সুখ-দু:খ,হাসি-কান্না,ব্যথা-বেদনার মাঝেও আপার শান্তিতে পরিবার তথা সমাজে মাথা উচুঁ করে নিজের অস্তিত্বকে মেলে ধরতে পেরেছি।

খুলনায় আওয়ামী লীগ নেতাসহ গুলিবিদ্ধ ৩

prayer-image
  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৪:৩০ পূর্বাহ্ণ
  • ১২:০৫ অপরাহ্ণ
  • ৪:৩২ অপরাহ্ণ
  • ৬:২৪ অপরাহ্ণ
  • ৭:৩৯ অপরাহ্ণ
  • ৫:৪৩ পূর্বাহ্ণ


ভারতের কাশ্মীরে জি-২০ সম্মেলনে যোগ দিচ্ছে না চীন

প্রকাশিত সময় :- ০১:১০:৩২ অপরাহ্ন, শনিবার, ২০ মে ২০২৩

ভারতের কাশ্মীরে জি-২০ সম্মেলন আয়োজনের তীব্র বিরোধিতা করেছে চীন। সংগঠনটির আসন্ন সম্মেলনে চীন যোগ দেবে না বলেও জানিয়েছে। এ ছাড়া তুরস্ক ও সৌদি আরবও এ সম্মেলনে যোগ দিতে এখনো নিবন্ধন সম্পন্ন করেনি। ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

গতকাল শুক্রবার চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ওয়াং ওয়েনবিন এনডিটিভিকে বলেছেন, ‘কোনো বিতর্কিত এলাকায় সম্মেলন আয়োজনের বিরোধিতা করে চীন। এ কারণে কাশ্মীরের শ্রীনগরে অনুষ্ঠিতব্য জি-২০ সম্মেলনে চীন যোগ দেবে না।’

উল্লেখ্য, আগামী ২২ থেকে ২৪ মে শ্রীনগরে জি-২০ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

ভারতের কাশ্মীর একটি বিতর্কিত অঞ্চল। ২০১৯ সালে কাশ্মীরের ‘রাজ্য’ মর্যাদা বাতিল করেছে ভারত সরকার। এমন একটি অঞ্চলে জি-২০ সম্মেলন আয়োজন করার সমালোচনা করেছে চীন এবং সম্মেলনে অংশ না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

তবে এবারের জি-২০ সম্মেলনে বিভিন্ন দেশের অন্তত ৬০ জন প্রতিনিধি অংশ নেবেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। এর আগে অন্তত ১০০ জন অংশ নেবেন বলে আশা করা হয়েছিল।

এদিকে একটি নির্ভরযোগ্য সূত্রের বরাত দিয়ে এনডিটিভি জানিয়েছে, তুরস্ক ও সৌদি আরবও এ সম্মেলনে অংশ না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

দুদিন পর অনুষ্ঠিতব্য জি-২০ সম্মেলন উপলক্ষে শ্রীনগরে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। ভারত সরকার এ অঞ্চলে মেরিন কমান্ডো ও ন্যাশনাল সিকিউরিটি গার্ড (এনএসজি) মোতায়েন করেছে।

এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শ্রীনগরের শের-ই-কাশ্মীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সেন্টারে জি-২০ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। এ উপলক্ষে কনভেনশন সেন্টারটির আশপাশে এনএসজি কমান্ডোরা, পুলিশ ও আধাসামরিক বাহিনীর সদস্যরা গত বৃহস্পতিবার তল্লাশি চালিয়েছে।

ভারতীয় কর্মকর্তারা বলেছেন, কাশ্মীরের পর্যটন সম্ভাবনা বিশ্ববাসীর সামনে তুলে ধরতে এ অঞ্চলে জি-২০ সম্মেলন আয়োজন করা হয়েছে। আমরা বিশ্বের কাছে এই বার্তা দিতে চাই যে, কাশ্মীর ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ।

বিশ্বের বৃহৎ অর্থনীতির দেশগুলোর জোট জি-২০। এর সভাপতি দেশ ভারত। সভাপতির পদ গ্রহণ করার পর ভারত জানিয়েছিল, দেশের সব রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলেই জি-২০-এর কোনো না কোনো বিষয়ে সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। গত মার্চে ভারতের অরুণাচল প্রদেশের রাজধানী ইটানগরে দুই দিনের জি-২০ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছিল। সেই সম্মেলনেও অংশ নেয়নি চীন। আগামী সেপ্টেম্বরে দিল্লিতে জি-২০ এর শীর্ষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

নিউজবিজয়২৪/এফএইচএন