পিতা মুক্তিপণ দিয়েও পেলেন একমাত্র ছেলের লাশ » NewsBijoy24 । Online Newspaper of Bangladesh.
ঢাকা ০৬:৪১ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

পিতা মুক্তিপণ দিয়েও পেলেন একমাত্র ছেলের লাশ

  • নিউজ বিজয় ডেস্ক :-
  • প্রকাশিত সময় :- ০১:২৭:১৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
  • ২৯৯ পড়া হয়েছে। নিউজবিজয় ২৪.কম-১৫ ডিসেম্বরে ৯ বছরে পর্দাপন

অপহরণের শিকার হওয়া একমাত্র ছেলে তাওহীদ হোসেনকে (১০) ফিরে পেতে মুক্তিপণ দিয়েছিলেন তিন লাখ টাকা। তবে ছেলেকে পাননি, অপহরণের ৩৬ ঘণ্টা পরে পেয়েছেন তার লাশ।
সোমবার (১২ ফেব্রুয়ারি) ভোরে ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের আব্দুল্লাহপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পিছন থেকে তাওহীদ হোসেনের লাশ উদ্ধার করা হয়।

তাওহীদ হোসেন আব্দুল্লাহপুর রসুলপুর মাদরাসার হেফজ বিভাগের শিক্ষার্থী ছিল। ময়না তদন্তের জন্য মরদেহ স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

চাঞ্চল্যকর ও ক্লুলেস এই হত্যাকান্ডের মূল পরিকল্পনাকারীকে মুক্তিপণের টাকাসহ রাজধানীর শ্যামপুর এলাকা হতে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১০।

এ বিষয়ে সোমবার দুপুরে রাজধানীর কারওয়ান বাজারস্থ র‍্যাব মিডিয়া সেন্টারে সংবাদ সম্মেলনে এ বিষয় বিস্তারিত জানাবেন সংস্থাটির আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন।

নিউজবিজয়২৪/এফএইচএন

নিউজবিজয় ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন।

NewsBijoy24.Com

নিউজবিজয়২৪.কম একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল। বস্তুনিষ্ঠ ও তথ্যভিত্তিক সংবাদ প্রকাশের প্রতিশ্রুতি নিয়ে ২০১৫ সালের ডিসেম্বর মাসে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। উৎসর্গ করলাম আমার বাবার নামে, যাঁর স্নেহ-সান্নিধ্যের পরশ পরিবারের সুখ-দু:খ,হাসি-কান্না,ব্যথা-বেদনার মাঝেও আপার শান্তিতে পরিবার তথা সমাজে মাথা উচুঁ করে নিজের অস্তিত্বকে মেলে ধরতে পেরেছি।
জনপ্রিয় সংবাদ

হিলিতে নিষিদ্ধ পানীয় বিক্রির দায়ে ৪০ হাজার টাকা জরিমানা

Advertisement

পিতা মুক্তিপণ দিয়েও পেলেন একমাত্র ছেলের লাশ

প্রকাশিত সময় :- ০১:২৭:১৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

অপহরণের শিকার হওয়া একমাত্র ছেলে তাওহীদ হোসেনকে (১০) ফিরে পেতে মুক্তিপণ দিয়েছিলেন তিন লাখ টাকা। তবে ছেলেকে পাননি, অপহরণের ৩৬ ঘণ্টা পরে পেয়েছেন তার লাশ।
সোমবার (১২ ফেব্রুয়ারি) ভোরে ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের আব্দুল্লাহপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পিছন থেকে তাওহীদ হোসেনের লাশ উদ্ধার করা হয়।

তাওহীদ হোসেন আব্দুল্লাহপুর রসুলপুর মাদরাসার হেফজ বিভাগের শিক্ষার্থী ছিল। ময়না তদন্তের জন্য মরদেহ স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

চাঞ্চল্যকর ও ক্লুলেস এই হত্যাকান্ডের মূল পরিকল্পনাকারীকে মুক্তিপণের টাকাসহ রাজধানীর শ্যামপুর এলাকা হতে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১০।

এ বিষয়ে সোমবার দুপুরে রাজধানীর কারওয়ান বাজারস্থ র‍্যাব মিডিয়া সেন্টারে সংবাদ সম্মেলনে এ বিষয় বিস্তারিত জানাবেন সংস্থাটির আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন।

নিউজবিজয়২৪/এফএইচএন