টিটিই শফিকুল নির্দোষ, ক্ষমা চাইতে হবে রেলমন্ত্রীর আত্মীয়কে » NewsBijoy24 । Online Newspaper of Bangladesh.
ঢাকা ০৪:৫৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ২১ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

https://www.newsbijoy24.com/

টিটিই শফিকুল নির্দোষ, ক্ষমা চাইতে হবে রেলমন্ত্রীর আত্মীয়কে

  • নিউজ বিজয় ডেস্ক :-
  • প্রকাশিত সময় :- ০২:০০:১২ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৬ মে ২০২২
  • ২৮৭ পড়া হয়েছে। নিউজবিজয় ২৪.কম-১৫ ডিসেম্বরে ৯ বছরে পর্দাপন

ছবি নিউজ বিজয়

রেলপথ মন্ত্রীর আত্মীয় পরিচয় দেওয়ার পর জরিমানা করে বরখাস্ত হওয়া সেই টিটিই শফিকুল ইসলাম নির্দোষ প্রমাণিত হয়েছেন। সোমবার (১৬ মে) ওই ঘটনা অনুসন্ধানে গঠিত কমিটি সংশ্লিষ্ট বিভাগের কাছে প্রতিবেদন জমা দিয়েছে। প্রতিবেদনে টিটিই শফিকুলের বিরুদ্ধে যাত্রীদের সঙ্গে অসদাচরণের প্রমাণ পাওয়া যায়নি বলে উল্লেখ করা হয়েছে। ঘটনার জন্য দায়ী রেলের গার্ড শরিফুল ইসলামের বিরুদ্ধে শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগ আনা হয়েছে। এছাড়া অভিযোগকারী রেলমন্ত্রীর আত্মীয় প্রান্তকে গণমাধ্যমের কাছে এসে ক্ষমা প্রার্থনার জন্য বলা হয়েছে প্রতিবেদনে। পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ের ব্যবস্থাপক শাহিদুল ইসলামের কাছে জমা দেওয়া প্রতিবেদনে বলা হয়, টিটিই শফিকুল ইসলাম সম্পূর্ণ নির্দোষ। ওই দিনের ঘটনার জন্য সুন্দরবন এক্সপ্রেসের গার্ড শরিফুল ইসলামের প্ররোচনায় যাত্রী ইমরুল কায়েস প্রান্ত লিখিত মিথ্যা অভিযোগ করেছেন। এ প্রসঙ্গে তদন্ত কমিটির প্রধান বিভাগীয় সহকারী পরিবহন কর্মকর্তা সাজেদুল ইসলাম বাবু গণমাধ্যমকে বলেন, সম্পূর্ণ স্বাধীনভাবে তদন্ত কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়েছে। তদন্তের প্রয়োজনে ট্রেনে কর্তব্যরত সংশ্লিষ্ট ৯ জনের বক্তব্য শুনেছি। তারা সকলেই টিটিই শফিকুলকে নির্দোষ বলেছেন। তিনি আরও জানান, ট্রেনের গার্ড শরিফুল ইসলাম প্ররোচনার দায়ে অভিযুক্ত হয়েছেন। দক্ষতা শৃঙ্খলা বিধি অনুযায়ী তার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়ার সুপারিশ করা হয়েছে প্রতিবেদনে। অভিযোগকারী প্রান্তকে গণমাধ্যমের কাছে এসে ক্ষমা প্রার্থনার জন্য বলা হয়েছে। গত ৫ মে ইদের ছুটি শেষে ঢাকা ফেরার উদ্দেশ্যে পাবনার ঈশ্বরদি থেকে বিনা টিকিটে সুন্দরবন এক্সপ্রেসে উঠে পরেন তিন যাত্রী। ওই ট্রেনের টিটিই টিকিট চেকিং করতে এলে বিনা টিকিটে ট্রেন ভ্রমণ ও ভাড়া নিয়ে বাকবিতণ্ডার এক পর্যায়ে রেলমন্ত্রীর আত্মীয় বলে পরিচয় দেয় ওই তিন যাত্রী। মন্ত্রীর আত্মীয়কে বিনা টিকিটে ট্রেন ভ্রমণের জন্য জরিমানা করায় টিটিই শফিকুল ইসলামকে সাময়িক বরখাস্ত করে পাকশী রেলওয়ে। ওই ঘটনায় দেশজুড়ে তোলপাড় শুরু হয়। এরপর ওই তিন যাত্রী নিজের আত্মীয় না বলে একরকম বোম ফাঁটানো বক্তব্য দেন রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন। যদিও তার একদিন বাদেই আবার ওই তিন যাত্রী তার আত্মীয় স্বীকার করে নতুন করে সমালোচিত হন। ওই আলোচনা-সমালোচনার মধ্যেই গত ৮ মে রেলমন্ত্রীর নির্দেশে টিটিই শফিকুলকে কাজে পুনর্বহাল করে তিন সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। সে কমিটিই প্রতিবেদন জমা দিলো।
নিউজ বিজয়/নজরুল

নিউজবিজয় ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন।

NewsBijoy24.Com

নিউজবিজয়২৪.কম একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল। বস্তুনিষ্ঠ ও তথ্যভিত্তিক সংবাদ প্রকাশের প্রতিশ্রুতি নিয়ে ২০১৫ সালের ডিসেম্বর মাসে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। উৎসর্গ করলাম আমার বাবার নামে, যাঁর স্নেহ-সান্নিধ্যের পরশ পরিবারের সুখ-দু:খ,হাসি-কান্না,ব্যথা-বেদনার মাঝেও আপার শান্তিতে পরিবার তথা সমাজে মাথা উচুঁ করে নিজের অস্তিত্বকে মেলে ধরতে পেরেছি।

https://www.newsbijoy24.com/

রমজানে কোনো পণ্যের দাম বাড়বে না: বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী

Advertisement

টিটিই শফিকুল নির্দোষ, ক্ষমা চাইতে হবে রেলমন্ত্রীর আত্মীয়কে

প্রকাশিত সময় :- ০২:০০:১২ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৬ মে ২০২২

রেলপথ মন্ত্রীর আত্মীয় পরিচয় দেওয়ার পর জরিমানা করে বরখাস্ত হওয়া সেই টিটিই শফিকুল ইসলাম নির্দোষ প্রমাণিত হয়েছেন। সোমবার (১৬ মে) ওই ঘটনা অনুসন্ধানে গঠিত কমিটি সংশ্লিষ্ট বিভাগের কাছে প্রতিবেদন জমা দিয়েছে। প্রতিবেদনে টিটিই শফিকুলের বিরুদ্ধে যাত্রীদের সঙ্গে অসদাচরণের প্রমাণ পাওয়া যায়নি বলে উল্লেখ করা হয়েছে। ঘটনার জন্য দায়ী রেলের গার্ড শরিফুল ইসলামের বিরুদ্ধে শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগ আনা হয়েছে। এছাড়া অভিযোগকারী রেলমন্ত্রীর আত্মীয় প্রান্তকে গণমাধ্যমের কাছে এসে ক্ষমা প্রার্থনার জন্য বলা হয়েছে প্রতিবেদনে। পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ের ব্যবস্থাপক শাহিদুল ইসলামের কাছে জমা দেওয়া প্রতিবেদনে বলা হয়, টিটিই শফিকুল ইসলাম সম্পূর্ণ নির্দোষ। ওই দিনের ঘটনার জন্য সুন্দরবন এক্সপ্রেসের গার্ড শরিফুল ইসলামের প্ররোচনায় যাত্রী ইমরুল কায়েস প্রান্ত লিখিত মিথ্যা অভিযোগ করেছেন। এ প্রসঙ্গে তদন্ত কমিটির প্রধান বিভাগীয় সহকারী পরিবহন কর্মকর্তা সাজেদুল ইসলাম বাবু গণমাধ্যমকে বলেন, সম্পূর্ণ স্বাধীনভাবে তদন্ত কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়েছে। তদন্তের প্রয়োজনে ট্রেনে কর্তব্যরত সংশ্লিষ্ট ৯ জনের বক্তব্য শুনেছি। তারা সকলেই টিটিই শফিকুলকে নির্দোষ বলেছেন। তিনি আরও জানান, ট্রেনের গার্ড শরিফুল ইসলাম প্ররোচনার দায়ে অভিযুক্ত হয়েছেন। দক্ষতা শৃঙ্খলা বিধি অনুযায়ী তার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়ার সুপারিশ করা হয়েছে প্রতিবেদনে। অভিযোগকারী প্রান্তকে গণমাধ্যমের কাছে এসে ক্ষমা প্রার্থনার জন্য বলা হয়েছে। গত ৫ মে ইদের ছুটি শেষে ঢাকা ফেরার উদ্দেশ্যে পাবনার ঈশ্বরদি থেকে বিনা টিকিটে সুন্দরবন এক্সপ্রেসে উঠে পরেন তিন যাত্রী। ওই ট্রেনের টিটিই টিকিট চেকিং করতে এলে বিনা টিকিটে ট্রেন ভ্রমণ ও ভাড়া নিয়ে বাকবিতণ্ডার এক পর্যায়ে রেলমন্ত্রীর আত্মীয় বলে পরিচয় দেয় ওই তিন যাত্রী। মন্ত্রীর আত্মীয়কে বিনা টিকিটে ট্রেন ভ্রমণের জন্য জরিমানা করায় টিটিই শফিকুল ইসলামকে সাময়িক বরখাস্ত করে পাকশী রেলওয়ে। ওই ঘটনায় দেশজুড়ে তোলপাড় শুরু হয়। এরপর ওই তিন যাত্রী নিজের আত্মীয় না বলে একরকম বোম ফাঁটানো বক্তব্য দেন রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন। যদিও তার একদিন বাদেই আবার ওই তিন যাত্রী তার আত্মীয় স্বীকার করে নতুন করে সমালোচিত হন। ওই আলোচনা-সমালোচনার মধ্যেই গত ৮ মে রেলমন্ত্রীর নির্দেশে টিটিই শফিকুলকে কাজে পুনর্বহাল করে তিন সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। সে কমিটিই প্রতিবেদন জমা দিলো।
নিউজ বিজয়/নজরুল